শনিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ ফাল্গুন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
শুক্রবার হেলিকপ্টারে জকিগঞ্জ আসছেন হেফাজত মহাসচিব  » «   কাজলসার সোনাপুরে লোকমান চৌধুরীর সমর্থনে মতবিনিময় সভা  » «   সীমান্তবর্তী এলাকায় একদল ফিনিক্সের মাতৃভাষা চর্চা কার্যক্রম  » «   আবারও সিলেটের শ্রেষ্ঠ ওসি হলেন জকিগঞ্জ থানার হাবিবুর রহমান  » «   ফের সিলেটের শ্রেষ্ঠ সার্কেল হলেন জকিগঞ্জের অ্যাডিশনাল এসপি সুদীপ্ত রায়  » «   নিখোঁজ হওয়া সেই হাসানকে পাওয়া গেছে  » «   ক্যাডেটহোম জকিগঞ্জের অভিভাবক সমাবেশ ও বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা  » «   আটগ্রামে নিখোঁজ ৭ম শ্রেণীর ছাত্রের সন্ধান চায় পরিবার  » «   জকিগঞ্জে স্বরস্বতী পুজা উপলক্ষ্যে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে হাফিজ মজুমদার এমপি  » «   বারহালে মেধাবী শিক্ষার্থীদের মধ্যে প্রবাসীর অর্থ বিতরণ  » «  

সিলেটে ফিতরা সর্বনিন্ম ৫৫ টাকা, সর্বোচ্চ ১১৫৫ টাকা

????????????????????????????????????

চলতি বছর সিলেট শহর ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় জনপ্রতি সর্বনিম্ন ফিতরা ৫৫ টাকা এবং সর্বোচ্চ ১ হাজার ১৫৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। যে কেউ ইচ্ছা করলে সর্বনিম্ন এই হার থেকে সর্বোচ্চ হারে ফিতরা আদায় করতে পারবেন।

সোমবার (২৮ মে) বাংলাদেশ জাতীয় ইমাম সমিতি সিলেট মহানগর শাখার সভাকক্ষে ‘দরিদ্র বিমোচনে যাকাত-ফিৎরার ভূমিকা ও স্থানীয়ভাবে ফিৎরার পরিমাণ নির্ধারণ’ শীর্ষক সেমিনারে এ সিদ্ধান্ত হয়েছে।

সিলেট মহানগর ইমাম সমিতির সভাপতি মাওলানা হাবীব আহমদ শিহাবের সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

শহরের বিভিন্ন খুচরাবাজার যাচাই করে আটা ১৬৫০ গ্রাম ও খেজুর, কিসমিস ৩৩০০ গ্রামের মধ্য কোয়ালিটির মূল্য নির্ধারণের মাধ্যমে ফিতরার পরিমাণ নির্ধারণ করা হয়। আগামী শুক্রবার জুমার বয়ানে যাকাত ফিতরা বিষয়ে আলোচনা করার জন্য নগরীর সকল ইমাম খতিবদের প্রতি আহবান জানান।

সেমিনারের প্রধান সিদ্ধান্তদানকারী দরগাহে হযরত শাহজালাল রহ: মাদরাসার শায়খুল হাদীস আল্লামা মুহিব্বুল হক গাছবাড়ি বলেন, ‘ফিতরায় ওজনের পরিমাণ নির্ধারণ করা হয় কিসমিস ও খেজুর ৩৩০০ গ্রাম যা শরীয়তে ১ সা’, আটা, যব যা নির্ধারণ করা হয় ১৬৫০ গ্রাম, যা শরীয়তে অর্ধসা। এ পরিমাপ অনুযায়ী বাজার দরের সাথে সামঞ্জস্য করে ফিতরা নির্ধারণ করা হয়েছে।’

সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাওলানা সিরাজুল ইসলামের পরিচালনায় উপস্থিত ছিলেন, দরগাহ মাদরাসার মুহতামিম মুফতী আবুল কালাম জাকারিয়া, সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজ এর পরিচালক মাওলানা সিরাজুল ইসলাম সিরাজী, কুদরত উল্লাহ মার্কেটের ব্যবসায়ী মাওলানা রেজাউল করিম জালালী, সিলেট সরকারি আলিয়া মাদরাসার মুফতী মাওলানা আব্দুল মুছাব্বির, দরগাহ মাদরাসার সহকারী শিক্ষা সচিব মুফতী আতাউল হক জালালাবাদী, হযরত শাহজালার ডিওয়াই কামিল মাদরাসার মুফতী উপাধ্যক্ষ আবুল সারেহ কুতবুল আলম, জামেয়াতুল খায়ের আল ইসলামী সিলেটের মুফতী মাওলানা জমির উদ্দিন, মুফতী রশিদ আহমদ, দারুসসালাম খাসদবির মাদরাসার মুফতী মুহাম্মদ যাকারিয়া, ইমাম সমিতির জেলা সভাপতি মাওলানা মোহাম্মদ এহসান উদ্দিন, শিবগঞ্জ মাদরাসার মাওলানা আসরারুল হক, কুদতর উল্লাহ মাদরাসার প্রিন্সিপাল হাফিজ মাওলানা মিফতাহ উদ্দিন, জেলা সেক্রেটারী মাওলানা জালাল উদ্দিন ভুইয়া, ইমাম সমিতির সহ সভাপতি কারী মাওলানা শহীদ আহমদ, মুফতি মাওলানা বুরহান উদ্দিন, মাওলানা নূর উদ্দিন আহমদ, মাওলানা আহমদ হোসেইন, মাওলানা নূর আহমদ কাসেমী, মাওলানা আব্দুস সালাম, মাওলানা হিফজুর রহমান, মুফতী মাওলানা আব্দুর রহমান প্রমুখ। এছাড়াও আলোচনায় অংশ গ্রহণ করেন মাওলানা আব্দুর রহিম, মাওলানা এখলাছুর রহমান, মাওলানা হিফজুর রহমান, হাফিজ মাওলানা শরফ উদ্দিন, মাওলানা মাহবুব আহমদ নাঈমী, মাওলানা মোহাম্মদ আলী, মাওলানা শুয়াইবুর রহমান, মাওলানা মিছবাহ উদ্দিন, মাওলানা হারিছ আহমদ, মাওলানা সিদ্দিক আহমদ, মাওলানা সালেহ আহমদ শাহবাগী প্রমুখ।

ফিতরা নির্ধারণের জন্য বাজার মনিটরিং করেন ইমাম সমিতির সহ সভাপতি মাওলানা নূর আহমদ কাসেমী, সহ সাধারণ সম্পাদক হাফিজ মাওলানা ছুহাইব আহমদ ও দপ্তর সম্পাদক হাফিজ মাওলানা আব্দুর রহমান।

আপনার মতামত প্রদান করুন

টি মন্তব্য

Insurance Loans Mortgage

Developed by:

.