সোমবার, ২০ নভেম্বর, ২০১৭ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
জকিগঞ্জ সরকারি কলেজ ছাত্রদলের আনন্দ মিছিল  » «   ছেলে মৃত্যুর ৪৩দিন পর ইন্তেকাল করেন বাবা; জানাযা আড়াইটায়  » «   জকিগঞ্জে নব বিবাহীত যুবকের বিষ পানে মৃত্যু  » «   এনজিও আশা’র কর্মকর্তা আলী হোসেনের মায়ের ইন্তেকালে শোক  » «   জকিগঞ্জ-সিলেট সড়ক সংস্কারের দাবিতে জকিগঞ্জে সমাবেশ  » «   এলংজুরী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দোয়া মাহফিল ও পুরস্কার বিতরণ  » «   ইনামতি স্টুডেন্ট এসোসিয়েশনের গণ গ্রন্হাগারের উদ্বোধন  » «   শাবিপ্রবিতে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদেরকে জেডএসও এর অভিনন্দন  » «   জকিগঞ্জ বাজারে ভাই ভাই হিরো ক্লাবের অফিস উদ্বোধন  » «   জকিগঞ্জ পৌর এলাকায় শুক্রবার সারাদিন বিদ্যুৎ থাকবে না  » «  

বিয়ানীবাজারে শ্রমিকদের সংঘর্ষে আহত ১০; গুলি বিনিময়

বিয়ানীবাজার পৌরশহরের কলেজ রোডে পূর্ব বিরোধের জের অটোরিক্সা শ্রমিক ইউনিয়নের দুই শাখার পরিবহন শ্রমিকদের মধ্যে সংঘর্ষ, ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া, ইট পাটকেল নিক্ষেপ, গুলি বর্ষণ ও দোকান ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। আজ সোমবার সকালে এ সংঘর্ষ ঘটনায় ১০ পরিবহন শ্রমিকসহ কমপক্ষে ১৫জন আহত হয়েছেন।

সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন। সংঘর্ষ ঘটনায় পরিবহন শ্রমিকদেও একটি পক্ষ থেকে প্রতিপক্ষকে লক্ষ্য করে তিন রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়।

জানা যায়, অটোরিক্সা চালক-মালিক সমিতি ৭০৭ (চট্টমেট্টো ৭০৭) এবং অটোরিক্সা চালক-মালিক সমিতি ২০৯৭ (চট্টমেট্টো ২০৯৭) শ্রমিকদের দুই পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। আগ্নেয়াস্ত্র ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে শ্রমিকদের দুই পক্ষ ঘন্টাব্যাপী ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া, ইট পাটকেল নিক্ষেপ ও গুলি বর্ষণের ঘটনায় ১০ পরিবহন শ্রমিক ও সংঘর্ষ ঘটনায় ৫ পথচারি আহত হয়েছেন। সংঘর্ষের এক পর্যায়ে পরিবহন শ্রমিকদের একটি অংশ আব্দুস সাত্তার শপিং কমপ্লেক্সেও একটি দোকান ভাংচুর করে। খবর পেয়ে বিয়ানীবাজার থানার (ওসি) চন্দন কুমার চক্রবর্তী একদল পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাঠিচার্জ করে পরিবহন শ্রমিকদের ছত্রভঙ্গ করে দেন। খবর পেয়ে বিয়ানীবাজার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মু: আসাদুজ্জামান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

আহত পরিবহন চালক আব্দুল হাসিবকে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার শাহরিয়ার তাকে সিলেট ওসমানি হাসপাতালে প্রেরণ করেন। তার মাথায় আঘাত রয়েছে। সংঘর্ষে আহত চালক জাকারিয়া, বেলাল এবং গুলিবিদ্ধ নাজিম উদ্দিনকে বিয়ানীবাজার উপজেলা হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। অন্য আহতদের নাম পরিচয় পাওয়া যায়নি।

অটোরিক্সা চালক-মালিক সমিতি ৭০৭ কলেজ রোড শাখার সাধারণ সম্পাদক সুমন আহমদ বলেন, কোন উস্কানি ছাড়া ২০৯৭ (চট্টমেট্টো ২০৯৭) এর ম্যানেজার মিছবা একদল যুবক নিয়ে আমাদের উপর হামলা চালায়। এ সময় ছাত্রলীগ ক্যাডার সাহেদ আমাদের লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে।

অটোরিক্সা চালক মালিক সমিতি ২০৯৭ কলেজ রোড শাখার ম্যানেজার মিছবা উদ্দিন বলেন, আমাদের অস্থায়ী কার্যালয় তারা গত বৃহস্পতিবার উড়িয়ে দেয়। আজ সেখানে গিয়ে গাড়ি চালাতে গেলে সুমনসহ অন্যরা বাধা দেয়। আমরা পাল্টা বাধা দিয়ে সংঘর্ষ বাঁধে।

বিয়ানীবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) চন্দন কুমার চক্রবর্তী বলেন, পরিস্থিতি আমাদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। উভয় পক্ষকে নিদের্শ দেয়া হয়েছে কোনভাবে যেন তা সংঘর্ষে না জড়ায়। তিনি বলেন, এ ঘটনা থানায় কোন পক্ষ অভিযোগ দায়ের করেনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার মতামত প্রদান করুন

টি মন্তব্য

Insurance Loans Mortgage

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.