সোমবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
২৩ দিনেও খোঁজ মেলেনি জকিগঞ্জের স্কুলছাত্র রুবেলের  » «   জকিগঞ্জে বিদ্যুতের শর্টসার্কিট থেকে আগুন; ৬শতাধিক ব্রয়লার মোরগ পুড়ে ছাই  » «   মোস্তাক সরকারকে জকিগঞ্জ অফিসার্স ক্লাবের বিদায় সংবর্ধনা  » «   কাস্টমঘাটে প্রতিমা বিসর্জন উপলক্ষ্যে হাজারো মানুষের ভিড়  » «   নবাগত জকিগঞ্জ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটকে বরণ  » «   জকিগঞ্জের পূজা মন্ডপ পরিদর্শনে মাসুক উদ্দিন আহমদ  » «   জকিগঞ্জে পূজা মন্ডপ পরিদর্শনে অ্যাড. মোশতাক সহ আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ  » «   কানাইঘাটে দুর্গাপূজার মন্ডপ পরিদর্শনে ড. আহমদ আল কবির  » «   চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট’র উদ্বোধন  » «   শাবির এ ইউনিটের মেধা তালিকায় জকিগঞ্জের জসিম লস্কর  » «  

ফিলিস্তিনের রাস্তায় হাজার হাজার জনতা

ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে জেরুজালেমকে স্বীকৃতি দেয়ার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানাতে হাজার হাজার বিক্ষুব্ধ ফিলিস্তিনি নাগরিক রাস্তায় নেমে এসেছে। খবর আল জাজিরার।

বৃহস্পতিবার দিনভর গাজা ও পশ্চিম তীরে বিক্ষোভ জানায় ফিলিস্তিনের নাগরিকরা। এই সময় তাদের সঙ্গে ইসরায়েলের সেনাদের সঙ্গে সংঘর্ষ শুরু হয়।

পশ্চিম তীরের স্থানীয় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়, বিক্ষোভে ৫০ ফিলিস্তিনি নাগরিক আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে ১৬ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।

আল জাজিরার রামাল্লাহ প্রতিনিধি জানান, ফিলিস্তিনি তরুণদের সঙ্গে বেশ কয়েক ঘন্টা ধরে ইসরায়েলি সেনাদের সংঘর্ষ চলে। এরপর বেশ কিছু জায়গায় সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে।

ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীরা রামাল্লাহর কেন্দ্রীয় আল মানারা স্কোয়ারে জমায়েত হন। পরে এল বিরেহ এলাকার দিকে যাওয়ার পথে তারা ইসরায়েলি বাহিনীর বাধার মুখে পড়ে। বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য করে টিয়ার গ্যাস, রাবার বুলেট ছোড়ে ইসরায়েলি সেনারা।

তুরস্কের রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা আনাদোলু জানায়, পশ্চিম তীরের হেবরন, নাবলুস, জেনিন, তুলকারেম ও জেরিকো অঞ্চলেও বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়েছে। পূর্ব জেরুজালেম এবং গাজা উপত্যকায়ও ট্রাম্পের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ জানিয়েছে ফিলিস্তিনি নাগরিক।

এদিকে ফিলিস্তিনের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা  জানান, দীর্ঘদিনের নীতি পরিবর্তন করায় ফিলিস্তিনে মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্সকে অভিনন্দন জানানো হয়নি। এর মধ্যদিয়ে বিতর্কিত এ নগরীর বিষয়ে দীর্ঘ কয়েক দশকের অস্পষ্ট মার্কিন নীতির অবসান ঘটল।

এটা নিয়ে হোয়াইট হাউসের পক্ষ থেকে বলা হয়, এ মাসের শেষের দিকে পেন্স ও ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসের মধ্যে পূর্ব নির্ধারিত একটি বৈঠক তারা ‘পাল্টা পদক্ষেপ’হিসেবে বাতিল করবে।

ট্রাম্পের এমন ঘোষণায় বিশ্বব্যাপী সমালোচনার ঝড় উঠলেও ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু মার্কিন প্রেসিডেন্টের অনেক প্রশংসা করে বলেন, জেরুজালেমের দীর্ঘদিনের ইতিহাসে তার নাম লেখা থাকবে। তিনি বিশ্বের অন্য দেশগুলোকে ট্রাম্পকে অনুসরণ করতে বলেন।

ইসরায়েলি সামরিক বাহিনী জানায়, গাজা সিটিতে এক ভাষণে হামাস নেতা ইসমাইল হানিয়া নতুন করে যুদ্ধের ডাক দিয়েছেন। এর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে গাজা উপত্যকার বিভিন্ন এলাকা থেকে গুলির শব্দ শোনা যায়।

গাজা কর্তৃপক্ষ জানায়, ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে জেরুজালেমকে ট্রাম্প স্বীকৃতি দেয়ার প্রতিবাদে গাজার পাশাপাশি পশ্চিম তীরে ব্যাপক বিক্ষোভ প্রদর্শন করা হয়। গাজায় বিক্ষোভ সমাবেশে ইসরায়েলি বাহিনীর গুলিতে পাঁচ ফিলিস্তিনি নাগরিক আহত হয়েছে।

ফিলিস্তিনি রেডক্রস জানায়, পশ্চিম তীরে বন্দুকের গুলি বা রাবার বুলেটের আগাতে ২২ জন আহত হয়।

এদিকে রামাল্লাহ’র প্রবেশ পথের একটি নিরাপত্তা ফাঁড়িতে সমবেত হওয়া বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে ইসরায়েলি বাহিনী টিয়ার গ্যাস নিক্ষেপ করতে হয়।

(ঢাকাটাইমস/৮ডিসেম্বর/এসআই)

আপনার মতামত প্রদান করুন

টি মন্তব্য

Insurance Loans Mortgage

Developed by:

.