সোমবার, ২৪ জুলাই, ২০১৭ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ শ্রাবণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
জকিগঞ্জ সর. কলেজে ছাত্রদলের স্বাগত মিছিল  » «   মুন্সীপাড়া দাখিল মাদ্রাসায় সংবর্ধনা ও মাসুক আহমদ স্মরণে মিলাদ মাহফিল  » «   ধর্মীয় সংগঠনে সম্পৃক্ত না রাখার অনুরোধ হিরঞ্জিত বিশ্বাসের  » «   পাশের সংখ্যায় শীর্ষে ইছামতি ডিগ্রী কলেজ  » «   নব-গঠিত মানিকপুর ইউপি ছাত্রদলের আনন্দ মিছিল  » «   বিভিন্ন দাবিতে জকিগঞ্জে পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মবিরতি  » «   জকিগঞ্জে ভোটার তালিকা হালনাগাদ আগামীকাল থেকে ; নিয়মে পরিবর্তন।  » «   জকিগঞ্জের ১৩৬টি সর. প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বৃক্ষরোপণ  » «   লন্ডন থেকে দেশে ফেরার পর বিমানবন্দরে মাসুক উদ্দিন আহমদকে সংবর্ধনা  » «   এইচএসসি উত্তীর্ণদের মধ্যে ছাত্রলীগ নেতার মিষ্টি বিতরণ  » «  

পাল্টে যাওয়া সেই জুনায়েদ!

12801120170316152213

বাবা-মায়ের আদর করে রাখা নামের আগে ‘বখাটে’ শব্দটা জুটিয়েছিলেন জুনায়েদ। এই সেই জুনায়েদ, রাজধানীর ধানমন্ডি লেকে ফিল্মি কায়দায় যার বন্ধুকে মারধর করার ভিডিও ফুটেজ সোশাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছিল। সেই সুবাদে সংবাদমাধ্যমে বখাটে হিসেবে তাকে তুলে ধরা হয়। ওই ঘটনার পরই অনুতপ্ত জুনায়েদ নিজেকে একটু একটু করে পাল্টে ফেলতে শুরু করেন। মাদকাসক্তি থেকেেএকান্ত নিজের চেষ্টায় নিজেকে মুক্ত করেন। পড়াশোনায় মন দেন, যুক্ত হন সমাজসেবামূলক কাজে। মাত্র একবছরে নিজেকে পাল্টে ফেলার দৃষ্টান্ত হয়ে ওঠেছেন জুনায়েদ।

নিজেকে পাল্টে ফেলা প্রসঙ্গে জুনায়েদ বলেন, ওই অনাকাঙ্খিত ঘটনাটি ঘটার পেছনে ছিল মাদকাসক্তি। ওই সময় মাদক আমাকে ‘বখাটে’ করে তুলেছিল। বন্ধুকে মারধর করার পর প্রচণ্ড অনুতপ্ত হয়ে আমি উপলব্ধি করতে পারি, মাদকসেবন আমাকে বিপথগামী করে তুলেছে। নিজেকে সংশোধন করতে হলে আগে মাদকাসক্তি থেকে বেরিয়ে আসতে হবে।

তিনি বলেন, মাদকাসক্তি থেকে বেরিয়ে আসার জন্য আমি সব বন্ধুবান্ধব থেকে নিজেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলি।সঙ্গদোষই আমি খারাপ পথে টেনে নিয়ে যায়। তাই মাদকাসক্ত সঙ্গীদের সঙ্গে সবধরনের যোগাযোগ বন্ধ করে দেই। নিজের একাডেমিক পড়াশোনার প্রতি মন দেই। পাশাপাশি নিজেকে ব্যস্ত রাখার জন্য বস্তির কিছু পথশিশুকে পড়াশোনা দেখিয়ে দিতে শুরু করে। পরে মাদকমুক্ত চার বন্ধুকে নিয়ে বস্তিবাসী শিশুদের জন্য গড়ে তুলি আলোর পরশ নামে একটি স্কুল।

জুনায়েদ মনে করেন, মাদক মানুষের জীবন থেকে মানবিকতা কেড়ে নেয়। তবে মাদকাসক্ত কেউ যদি মন থেকে মাদক ত্যাগ করতে চায় এবং মাদকসেবী বন্ধু থেকে নিজেকে দূরে রেখে সৃজনশীল বা সমাজসেবামূলক কাজে নিজেকে ব্যস্ত রাখতে পারে তাহলে মাদকের অভিশাপ থেকে বেরিয়ে অাসা সম্ভব।

জুনায়েদ জানান, এসএসসি পাশ করার পর বিপথগামী বন্ধুদের সংস্পর্শে তিনি মাদকসেবন শুরু করেন। পড়াশোনা না করায় সময়মতো ইন্টারমিডিয়েট পরীক্ষা দেওয়া তার পক্ষে সম্ভব হয়নি। ওই সময়ই বান্ধবীকে বাজে মন্তব্য করার জেরে এক বন্ধুকে প্রচণ্ড মারধর করেন। তিনি বলেন, আসলে আমি কখনো পড়ালেখায় খারাপ ছিলাম না। কিন্তু থেকে কি যে হয়ে গেল। আমি কীভাবে অন্ধকারে চলে গেলাম বুঝতেই পারিনি। তবে এখন আমি পড়াশোনা শুরু করেছি। একটা ডিপ্লোমা কোর্স করছি, এরপরেই ভার্সিটিতে ভর্তি হবো।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ১৩ মার্চ ধানমণ্ডির লেকের পাড়ে একটি মারধরের ঘটনা ঘটে, যা ভিডিও করা হয় এবং তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে পোস্ট করা হয়। ১০ মিনিটের ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, এক কিশোরীকে কেন্দ্র করে নুরুল্লাহ নামের এক যুবককে মারধর করছেন জুনায়েদ। এরপরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে ভিডিওটি। পরে নুরুল্লাহর মামলায় জুনায়েদকে গ্রেপ্তার করা হয়। বর্তমানে তিনি জামিনে রয়েছেন।

আপনার মতামত প্রদান করুন

টি মন্তব্য

Insurance Loans Mortgage

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by:

.