সোমবার, ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ পৌষ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
জকিগঞ্জে মহান বিজয় দিবস উদযাপন  » «   প্রিন্সিপাল আল্লামা বালাউটি ছাহেব বাড়ির সন্নিকটে ঈদে মিলাদুন্নবী (সা:) মাহফিল  » «   বীর মুক্তিযোদ্ধা নোমান উদ্দিনের কিছু বীরত্ত্ব গাঁথা স্মৃতি।  » «   জকিগঞ্জে বিপুল সংখ্যক নেতা কর্মীদের নিয়ে সভা করলেন মাসুক উদ্দিন আহমদ  » «   নব নির্মিত জকিগঞ্জের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মহান বিজয় দিবসে শ্রদ্ধা জানানো হবে  » «   মহান দিবস উপলক্ষে জকিগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের ব্যাপক কর্মসূচি  » «   মহান বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে জকিগঞ্জ বার্তার শুভেচ্ছা  » «   জকিগঞ্জে ধানের শীষ সমর্থক ফ্রন্ট গঠন  » «   জকিগঞ্জ উপজেলা অডিটোরিয়ামে আজ সন্ধ্যায় নাটক ও সংগীতানুষ্ঠান  » «   যথাযথ মর্যাদায় জকিগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবীদের স্মরণ  » «  

আমাদের চোখের পানিটা কেউ দেখে না : মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ

জিম্বাবুয়েকে ঢাকায় দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে হারিয়ে সিরিজের ট্রফি ভাগাভাগি করে বাংলাদেশ। স্বাগতিকরা ২১৮ রানে পরাজিত করে সফরকারীদের। ম্যাচ শেষে বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ জানান খারাপ খেললে ড্রেসিং রুমে মনটা তাদেরই বেশি খারাপ হয়, তাদের চোখের পানি কেউ দেখে না।

সিরিজ ড্র হওয়াতে আনন্দ নাকি স্বস্তি পেয়েছেন এমন প্রশ্নের মুখোমুখি হয়ে বাংলাদেশ অধিনায়ক জানান, ‘যদি আপনি ম্যাচ জয় করেন তাহলে অবশ্যই আপনার আনন্দ লাগা উচিত। ম্যাচ জিতলে অতটুকু অধিকার থাকে আনন্দ প্রকাশ করার। আমরা যখন খারাপ খেলি, ড্রেসিং রুমে মনটা আমাদেরই বেশি খারাপ হয়। আমাদের চোখের পানিটা কেউ দেখে না। আমরা এটা কাউকে বলিও না। এখানে কমপেয়ারিজমের কোন ইস্যু নেই, স্বস্তিও না, আনন্দও না।‘

তবে ট্রফি ভাগাভাগি করায় খারাপ লাগছে টাইগার অধিনায়কের কাছে। ‘প্রথম টেস্টে আমার মনে হয় আমরা খুব বাজে ক্রিকেট খেলেছি। শুরুতে আমাদের লক্ষ্য ছিল দুটি ম্যাচেই জেতা। হোম কন্ডিশনে জিম্বাবুয়ে হোক, অস্ট্রেলিয়া হোক কিংবা অন্য যে কোন দলই হোক আমরা সব সময় চাই নিজেদের কন্ডিশনের সুযোগ কাজে লাগিয়ে যেন আমরা সিরিজ জিততে পারি। যে ফরম্যাটই হোক আমাদের লক্ষ্য থাকে এমনটাই। সেদিক থেকে বললে ‘ট্রফিটা শেয়ার করতে খুবই খারাপ  লাগছে।‘

সিলেটে প্রথম টেস্টে বিব্রতকর ব্যাটিংয়ে হারে বাংলাদেশ। ঢাকায় টেস্ট খেলতে নামেন সিরিজ বাঁচানোর সংকল্প নিয়ে। তবে অধিনায়ক জিম্বাবুয়েকেও খাটো করে দেখছেন না। তিনি বলেন, ‘সবাই চাচ্ছিল জিম্বাবুয়ের সাথে বাংলাদেশ জিতুক। আমার মনে হয় জিম্বাবুয়েকেও ক্রেডিট দিতে হবে, ওরা ভাল ক্রিকেট খেলেছে। ব্যাটিং ও বোলিং দুই বিভাগের ভাল করেছে।’

ঢাকা টেস্টে জয়ে ফেরা নিয়ে মাহমুদুল্লাহ জানান, ‘প্রথম টেস্টে কিছু ল্যাক অব ডিসিপ্লিন ছিল, যা টেস্ট ক্রিকেটে অনেক গুরুত্বপূর্ণ। ওই জিনিসটা আমরা করতে পারিনি, যা এই টেস্টে করতে পেরেছি। প্রথম টেস্ট শেষে একটা কথা বলেছিলাম, আমাদের টিম ম্যানেজমেন্ট থেকে শুরু করে সবাই বেশ ডিটারমাইন্ড ছিলাম, প্রথম টেস্ট হারের পর আমরা খুব হার্ট হয়েছিলাম, আমরা চেয়েছিলাম তার বহিঃপ্রকাশ মাঠে দেখাতে। আমার মনে হয় আমরা কিছুটা হলেও করতে পেরেছি।‘

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দেশের মাটিতে তিন ওয়ানডে ও দুই টেস্টের দুটি সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। ওয়ানডেতে সফরকারীদের ধবল ধোলাই করলেও টেস্ট সিরিজ ড্র হয়।

আমাদের সময়

আপনার মতামত প্রদান করুন

টি মন্তব্য

Insurance Loans Mortgage

Developed by:

.